রাজধানীতে ঝুলন্ত তার অপসারণ অভিযান নভেম্বর পর্যন্ত বন্ধ

অপরাধ অর্থনীতি খেলাধুলা জনদুর্ভোগ জাতীয় পরিবেশ প্রবাস বাণিজ্য বিজ্ঞান বিনোদন বিশ্ব রাজনীতি সমগ্র বাংলাদেশ স্বাস্থ্য

রাজধানীর ঝুলন্ত তার মাটির নিচে প্রতিস্থাপনে নভেম্বর পর্যন্ত সময় বেঁধে দিয়ে আপাতত তার অপসারণের অভিযান বন্ধ রাখার সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি)।

নগর ভবনে আজ রবিবার (১৮ অক্টোবর) ডিএসসিসি মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপসের সঙ্গে ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (আইএসপিএবি) ও ক্যাবল অপারেটরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (কোয়াব) নেতাদের বৈঠক হয়। এতে এই সমঝোতা হয় বলে বৈঠক শেষে ব্রিফিংয়ে জানিয়েছেন ডিএসসিসি মেয়র তাপস।

ব্রিফিংয়ে মেয়র তাপস বলেন, দক্ষিণ সিটির পক্ষ থেকে রাস্তায় কোনও ঝুলন্ত তার আজকের পর থেকে কাটা হবে না। আমাদের বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে, তারা নিজ খরচে মাটির নিচ দিয়ে তারের সংযোগ নেবেন এবং সঙ্গে সঙ্গে ঝুলন্ত তার কেটে দেবেন। আর এটা আগামী নভেম্বরের মধ্যেই তারা শেষ করবেন বলে আমাদের কাছে কমিটমেন্ট দিয়েছেন। সে কারণেই আমরা তার কাটবো না।

আইএসপিএবি সভাপতি এম এ হাকিম বলেন, আজ থেকেই আমরা ঝুলন্ত তার নামিয়ে মাটির নিচে সংযোগের কাজ শুরু করে দেব। আশা করি নভেম্বরের মধ্যেই পারব।

বৈঠকে কোয়াবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি এস এম আনোয়ার পারভেজসহ দুই সংগঠনের জ্যেষ্ঠ নেতারা  উপস্থিত ছিলেন।

সম্প্রতি রাজধানীজুড়ে ঝুলে থাকা অবৈধ তার অপসারণে রীতিমতো অভিযান শুরু করে ঢাকা উত্তর (ডিএনসিসি) ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি)। একই সঙ্গে এর জন্য ন্যাশন ওয়াইড টেলিকমিউনিকেশন ট্রান্সমিশন নেটওয়ার্ক (এনটিটিএন) অপারেটরগুলোকে দায়ী করেন ডিএনসিসি মেয়র আতিকুল ইসলাম। তাঁর এই বক্তব্যকে প্রত্যাখ্যান করে বেসরকারি খাতে কাজ করা দুইটি এনটিটিএন অপারেটর।

এনটিটিএন অপারেটরগুলোকে তদারকিতে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন বিটিআরসির ভূমিকা নিয়ে তোলা মেয়র আতিকের প্রশ্নকেও প্রত্যাখ্যান করেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার।

এদিকে, শনিবারের (১৭ অক্টোবর) মধ্যে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) বিনা নোটিশে বৈদ্যুতিক খুঁটি থেকে ইন্টারনেট ও কেবল টিভি নেটওয়ার্কের তার অপসারণের সিদ্ধান্ত থেকে সরে না এলে অথবা এ সমস্যার সমাধান না হলে রবিবার (১৮ অক্টোবর) থেকে প্রতিদিন তিন ঘণ্টা করে দেশজুড়ে এই দুটি সেবা বন্ধ রাখবে আইএসপিএবি ও কোয়াব।

গত সোমবার সংবাদ সম্মেলন করে তার অপসারণ সমস্যার সমাধান দাবি করে ইন্টারনেট সার্ভিস প্রভাইডারস অ্যাসোসিয়েশন বাংলাদেশ (আইএসপিএবি) ও কেবল অপারেটরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (কোয়াব)। দাবি পূরণ না হলে সারা দেশে বাসাবাড়ি, অফিস, ব্যাংকসহ সব পর্যায়ে ইন্টারনেট ডাটা কানেক্টিভিটি এবং কেবল সংযোগ বন্ধ রাখার প্রতীকী কর্মসূচি ঘোষণা করে তারা।

সেই কর্মসূচি অনুযায়ী, রবিবার থেকে প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত দেশজুড়ে এই দুটি সেবা বন্ধ রাখা হবে বলে ঘোষণা দেওয়া হয়। এমন পরিস্থিতিতে আজ ডিএসসিসি মেয়রের সঙ্গে ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (আইএসপিএবি) ও ক্যাবল অপারেটরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (কোয়াব) নেতাদের বৈঠকের আয়োজন করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *